• Home »
  • গ্রামের খবর »
  • কাঁচেরকোলে ভয়াবহ আগুনে ৭টি পরিবারের ১৮টি ঘর পুড়ে ছাই: ক্ষতিগ্রস্থ ৭ পরিবার নিঃস্ব

কাঁচেরকোলে ভয়াবহ আগুনে ৭টি পরিবারের ১৮টি ঘর পুড়ে ছাই: ক্ষতিগ্রস্থ ৭ পরিবার নিঃস্ব

শৈলকুপার কাঁচেরকোল গ্রামে অগ্নিকান্ডে সাতটি পরিবারের ১৮টি ঘর পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। ভয়াবহ ওই আগুনে একের পর এক ঘর পুড়ে যায়। চোখের সামনে দাও দাও করে জ্বলা আগুনের লেলিহান শিখায় পুড়ে যাওয়া সাতটি পরিবারের সদস্যরা খোলা আকাশের নিচে নিঃস্ব হয়ে বসে আছে। আগুনে পোড়া নিঃস্ব পরিবারের পড়োনের একমাত্র কাপড় ছাড়া আর কিছুই অবশিষ্ট নেই।

রবিবার (৫ এপ্রিল) দুপুর কাঁচেরকোল ইউনিয়নের কাঁচেরকোল মধ্যপাড়া গ্রামে এ ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। আগুনে আনুমানিক ১৪ লাখ টাকার মতো ক্ষতি হয়েছে।

ক্ষতিগ্রস্তরা হলেন- জমির মোল্যার ২টি ঘর, আমির মোল্যার ৪টি, আজিজ মোল্যার ৩টি, জয়নাল মোল্যার ৩টি, স্বপন মোল্যার ১টি, রবিউল মোল্যার ৪টি ও নাসির মোল্যার ২টিসহ মোট ১৮টি ঘর পোড়ে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, রবিবার দুপুরে কাঁচেরকোলের আজিজ মোল্যার ঘর থেকে আগুনের সূত্রপাত ঘটে। আগুনের শিখা দেখে প্রতিবেশীরা ছুটে এসে আগুন নেভানোর চেষ্টা করেন। তবে ততক্ষণে আগুনে লেলিহান শিখা ছড়িয়ে পড়ে আশপাশের ঘরগুলোতে। ধিরে ধিরে আগুনের মাত্রা বেড়ে গেলে অসহায়চাবে একের পর এক ঘর পুড়ে যাওয়া ছাড়া কারও কিছু করার ছিল না।

আগুনে ৭টি বসতভিটা, ৭টি রান্নাঘর, ৪টি গোয়ালঘর, ২টি গৃহপালিত ছাগল পুড়ে ছাই হয়ে গেছে।

কাঁচেরকোল ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এ্যাড. সালাহ্উদ্দিন জোয়ার্দার মামুন জানান, আগুনে পুড়ে যাওয়া সাত পরিবারের সবকিছু পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। তারা এখন অসহায়। ক্ষতিগ্রস্তদের জন্য সন্ধ্যায় পোশাক খাদ্যসামগ্রী ও আনুষাঙ্গিক জিনিসপত্র নিয়ে তাদের বাড়িতে এসেছি।

এই অসহায় পরিবারগুলোর পাশে দাঁড়ানো জন্য এলাকার বিত্তবানদের প্রতি আহবান জানান চেয়ারম্যান মামুন জোয়ার্দার।

শৈলকুপা ফায়ার সার্ভিস স্টেশন অফিসার শফিকুল ইসলাম জানান, খবর পেয়ে দ্রুত ফায়ার কর্মীরা ঘন্টাব্যাপী চেষ্টার পর আগুন নিয়ন্ত্রণ আনতে সক্ষম হয়। আগুনে বসতভিটা, রান্নাঘর ও গোয়ালঘর পুড়ে যায়। বসতঘরে থাকা প্রয়োজনীয় সামগ্রী পুড়ে আনুমানিক ক্ষতির পরিমাণ ১৪লাখ টাকার মতো।

প্রাথমিকভাবে ফায়ার সার্ভিস ধারণা করছে ইলেকট্রনিক চুলা থেকে আগুনের সূত্রপাত ঘটে।

অসহায় এই সাতটি পরিবারের পাশে দাঁড়ানোর জন্য এলাকার বিত্তবানদের বিশেষভাবে অনুরোধ করা হলো।

ভিডিও: 

মন্তব্য করুন